.“...ঝড়ের মুকুট পরে ত্রিশূণ্যে দাঁড়িয়ে আছে, দেখো স্বাধীন দেশের এক পরাধীন কবি,---তার পায়ের তলায় নেই মাটি হাতে কিছু প্রত্ন শষ্য, নাভিমূলে মহাবোধী অরণ্যের বীজ... তাকে একটু মাটি দাও, হে স্বদেশ, হে মানুষ, হে ন্যাস্ত –শাসন!— সামান্য মাটির ছোঁয়া পেলে তারও হাতে ধরা দিত অনন্ত সময়; হেমশষ্যের প্রাচীর ছুঁয়ে জ্বলে উঠত নভোনীল ফুলের মশাল!”~~ কবি ঊর্ধ্বেন্দু দাশ ~০~

মঙ্গলবার, ২ জানুয়ারী, ২০১৮

পোয়াতি ঘর

।। অভীক কুমার দে।।


(C)Image:ছবি


























.
বুকের ভেতর শব্দ খুঁজে দেখেছি
বর্ণেরা কেমন ছটফট করেই দম নিতে চায় !
সব হিসেব লিখে একটা পৃথিবী
বানাবার যত উপকরণ জড়ো করে স্পন্দনের পোয়াতি ঘর
আমি আড়ি পেতেই আঁতকে উঠি,
কোন বাচ্চার কান্না শুনেছি বহুবার
ভেতরে দেখেছি ভেতর,
মনে হলো আমার সবকটি বর্ণ বর্ণনায়,
শব্দেরা অবচেতনার ছবি আঁকছে নিঃশব্দে।
....................



একটি মন্তব্য পোস্ট করুন