.“...ঝড়ের মুকুট পরে ত্রিশূণ্যে দাঁড়িয়ে আছে, দেখো স্বাধীন দেশের এক পরাধীন কবি,---তার পায়ের তলায় নেই মাটি হাতে কিছু প্রত্ন শষ্য, নাভিমূলে মহাবোধী অরণ্যের বীজ... তাকে একটু মাটি দাও, হে স্বদেশ, হে মানুষ, হে ন্যাস্ত –শাসন!— সামান্য মাটির ছোঁয়া পেলে তারও হাতে ধরা দিত অনন্ত সময়; হেমশষ্যের প্রাচীর ছুঁয়ে জ্বলে উঠত নভোনীল ফুলের মশাল!”~~ কবি ঊর্ধ্বেন্দু দাশ ~০~

মঙ্গলবার, ১৩ ফেব্রুয়ারী, ২০১৮

ধিক

        
।।  রফিক উদ্দিন লস্কর  ।।
(C)image:ছবি









তি উচ্চ তুমি হে গিরিরাজ! 
তব সম্মান কি উঁচু আছে এতো?
 
ভূমে পড়া ফল ছুঁয়না কেহ তথা,
 
সেই ফলের স্বাদ বাদুড়ে নিলে
তোমার কি জাত-কূল যেতো?
আত্মীয় পক্ষীরা দল বে
ধে আসে 
তোমার উপর ভরসা রেখে,
তুমি কি পারো না নত হতে সেথা
বিছিয়ে দিতে শীতল আসন।
ক্লান্ত পথিকেরা ফিরে যেতে চায়
বড়দের কাছে শুধুই শোষণ!
 
দুঃখীর দুঃখ দেখে হাসি ভরা মুখ
জাতের বড়াই এই পরিচয়?
তুমি ভুলনা, একদিন এই সবকিছু
 
ধীরে ধীরে হবে ক্ষয়।
 
তুমি কি ভাবো, উচ্চ তোমার শির?
সকল গিরি জয় করে তুমি মহা বীর?
শত ধিক দেই সেই বীরের তরে
একটুও মানবতা নেই যেখানে।
১৩/০২/২০১৮ইং
নিতাইনগর, হাইলাকান্দি (আসাম)





একটি মন্তব্য পোস্ট করুন